কানের পর্দার ছিদ্র বন্ধ করবে স্পঞ্জ

0

॥ ই-হেলথ২৪ ডেস্ক ॥  গবেষকরা দাবি করছেন কানের পর্দার ছিদ্র সারাবে ছোট্ট এক টুকরো স্পঞ্জ। জাপানের কিয়োটো বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক ও ওসাকার কিটানো হাসপাতালের চিকিৎসকরা এ পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছেন।

স্পঞ্জটি হবে বিশেষ প্রোটিনসমৃদ্ধ, যা শরীরের প্রাকৃতিক উপশম ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। এতে দ্রুত কানের পর্দার ছিদ্র বন্ধ হয়। শ্রবণশক্তির জন্য কানের পর্দা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

স্পর্শকাতর হওয়াতে পর্দা খুব অল্পতেই ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা থাকে। সাধারণত সংক্রমণ থেকে কানের পর্দা ক্ষতিগ্রস্ত হয় বেশি। এক হিসাবে দেখা গেছে, গড়ে প্রতি ২০ জনে একজন কানের পর্দা ছিদ্র হওয়ার সমস্যায় আক্রান্ত হন। এতে কানে তীব্র ব্যথা ও শ্রবণে সমস্যা দেখা দেয়। এমনকি পর্দার ছিদ্র বড় হলে শ্রবণশক্তি নষ্ট হওয়ারও আশঙ্কা থাকে। কান পরিষ্কার করতে গিয়ে বা উচ্চশব্দ যেমন গুলির শব্দ, বিস্ফোরণেও কানের পর্দা নষ্ট হতে পারে।

বেশির ভাগ ক্ষেত্রে কানের এ সমস্যা সপ্তাহ কয়েকের মধ্যে আপনা-আপনি সেরে যায়। কোনো কোনো ক্ষেত্রে দরকার হয় অস্ত্রোপচার। এর মাধ্যমে সাধারণত কানের অন্য কোনো স্থান থেকে ত্বক এনে পর্দার ছিদ্রে সংযোজন করা হয়। এতে সাফল্য পাওয়া গেলেও রোগীকে কমপক্ষে এক সপ্তাহ কাজকর্ম থেকে বিরত থাকতে হয়।

নতুন উদ্ভাবনটির ঝামেলা কম, অস্ত্রোপচারের কোনো প্রয়োজনই নেই। বরং এতে শরীর নিজেই তার রোগ প্রতিরোধ করে সেরে উঠতে সক্ষম হবে। এ জন্য যে স্পঞ্জটি ব্যবহার করা হবে তা আধা সেন্টিমিটার ব্যাসের। এটি বিশেষ ওই প্রোটিনে ১০ মিনিটের মতো চুবিয়ে কানের ভেতরে প্রতিস্থাপন করা হয়। কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই স্পঞ্জ থেকে তরল নির্গত হয়ে কানের পর্দায় নতুন কোষ সৃষ্টিকে ত্বরান্বিত করতে শুরু করে। এভাবেই পর্দার ছিদ্র মেরামত হয়।
সূত্র- মেইল অনলাইন