নির্দেশিত ওষুধ সমৃদ্ধ একটি জেল নারীদের মধ্যে এইডস সংক্রমণের হার ব্যাপকভাবে কমাতে পারে।

সম্প্রতি প্রকাশিত বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) এক যুগান্তকারী গবেষণায় এমন কথাই বলা হয়েছে।

গবেষণায় দেখা গেছে, গিলিড সায়েন্সের এইডস ওষুধ টেনোফোভির সমৃদ্ধ জেলটি নারীদের মধ্যে এইডস সংক্রমণের হার আড়াই বছরের মধ্যে ৩৯ শতাংশ কমিয়েছে।

ভিয়েনায় এইডস বিষয়ে আন্তর্জাতিক এক সম্মেলনে এ গবেষণা প্রতিবেদনটি উপস্থাপন করা হয়েছে। সম্মেলনে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও জাতিসংঘ এইডস গ্র”পস (ইউএনএআইডিস) এর এ গবেষণাটিকে ‘যুগান্তকারী’ হিসেবে আখ্যা দেওয়া হয়েছে।

এ গবেষণা থেকে প্রাপ্ত ফলাফলে দেখা যাচ্ছে, নারীরা যদি নিজেদের সুরক্ষিত রাখতে পারে তবে এ রোগের বিস্তার কমে যাবে।

এই জেল নারীদের যৌনবাহিত রোগের ঝুঁকি ৫১ শতাংশ কমাতে পারে বলে গবেষণায় বেরিয়ে এসেছে।

এ জেল সত্যিকার অর্থে কাজের কিনা এমন এক গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নের জবাবে ডারবানের কাওয়াজুলু-নাতাল ইউনিভার্সিটির অধ্যাপক ড. সেলিম আবদল করিম জানান, দক্ষিণ আফ্রিকার উপকূলীয় শহর ডারবান ও একটি গ্রামে ৮৮৯ জন নারী এটি নির্দেশিত পন্থায় পরীক্ষামূলকভাবে ব্যবহার করে দেখেছে।

দক্ষিণ আফ্রিকা ও ইউএসএইড এর অর্থ সহায়তায় গবেষণাটি পরিচালিত হয়েছে এবং গিলিড বিনামূল্যে ওষুধ সরবরাহ করেছে।